মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C

সুন্দরবন

সুন্দরবনের অপার প্রাকৃতিক সৌন্দর্য দেশী বিদেশী পর্যটকদেরকে সব সময়ই আকৃষ্ট করে। সুন্দরবনের আকর্ষণীয় স্থানগুলোর মধ্যে করমজল, হাড়বাড়ীয়া, সুপতি, কটকা, কচিখালী, নীলকমল, দুবলারচর, শেখের টেক মন্দির, মান্দারবাড়ীয়া সমুদ্র সৈকত, দোবেকী, কালিরচর, মৃগামারী ইত্যাদি উল্লেখযোগ্য। পর্যটন কেন্দ্র করমজলে বছরে সর্বাধিক সংখ্যক পর্যটক আসেন। একদিনের জন্য সুন্দরবন ভ্রমনের ক্ষেত্রে করমজল উপযুক্ত স্থান। মোংলা হতে ট্যুরিষ্ট বোট যোগে ভাড়া (১০০০/- হতে ১২০০/-) করমজল যাওয়া যায়। করমজল ভ্রমনে বন বিভাগের পূর্ব অনুমতি গ্রহণের প্রয়োজন নাই, তবে এন্ট্রি ফি মাথা পিছু ১০/- টাকা। করমজলে গিয়ে আপনি দেখতে পাবেন কুমির প্রজনন কেন্দ্র, হরিণ, বানর ইত্যাদি। এছাড়া বনের মধ্যে কাঠের তৈরী পথে হেঁটে সুন্দরবনের অপর প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভোগ করতে এবং পরিচিত হতে পারেন বনের বিভিন্ন প্রজাতির উদ্ভিদের সাথে। আর বনের গহীনে কটকা, কচিখালী, দুবলারচর, নীলকমল (হিরণপয়েন্ট) ইত্যাদি দর্শনীয় স্থানে ভ্রমনের ক্ষেত্রে বন বিভাগের পূর্বানুমতি গ্রহণ ও সরকার কর্তৃক নির্ধারিত রাজস্ব পরিশোধ করতে হয়। এ সব স্থানে অবস্থান সুবিধা সম্পন্ন লঞ্চ যোগে ভ্রমনের ক্ষেত্রে কয়েকটি বেসরকারী ট্যুর অপারেটর বছরের নির্দ্দিষ্ট সময় পর্যটকদের জন্য বিশেষ প্যাকেজ প্রোগ্রাম ঘোষণা করে থাকেন। ৩/৪ দিনের প্যাকেজ প্রোগ্রামের জন্য মাথাপিছু ৪/৫ হাজার টাকা ব্যয় হয়।  এছাড়া এককভাবে লঞ্চ নিয়েও পর্যটকগণ সুন্দরবন ভ্রমন করতে পারেন, তবে এক্ষেত্রে ভ্রমন বেশ ব্যয়বহুল।